লাদেন জঙ্গি নয় লাদেন শহীদ , ইমরান খানের বিতর্কিত মন্তব্যের ভিডিও ভাইরাল

সন্ত্রাসবাদীদের চারণভুমি পাকিস্তানের প্রকৃতি বিশ্বের অজানা নয়। তবুও, ওয়াশিংটন আফগানিস্তানের আমেরিকান স্বার্থ রক্ষার জন্য ইসলামাবাদের কয়েক বিলিয়ন ডলার অনুদান দিয়েছে। তবে আমেরিকার রাজমিস্ত্রিতে বসে রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্প সেই ‘ভিক্ষা’ রোধ করেছেন। ফলস্বরূপ, তুষার ইসলামাবাদ-ওয়াশিংটন সম্পর্কে দৃ .় হয়েছে। বৃহস্পতিবার সংসদে এই ইস্যুটির বিশদ বিবরণ করে ইমরান বলেছিলেন, “সন্ত্রাসবিরোধী আমেরিকার যুদ্ধে 70০,০০০ পাকিস্তানি মারা গেছে। আমাদের সেই যুদ্ধে অংশ নেওয়া উচিত হয়নি। আল কায়েদার প্রতিষ্ঠাতা ওসামা বিন লাদেন শহীদ।”

এদিকে ইমরানের বক্তব্য প্রকাশের সাথে সাথে গুজব ছড়িয়ে পড়তে শুরু করে। কিছু পাক নাগরিক নিজেই সমালোচিত হয়েছেন। কিছু বিশ্লেষকের মতে আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের উপর চাপ চাপানোর অভিপ্রায় নিয়ে ইমরান এই মন্তব্য করেছিলেন। আর্থিক সহায়তার জন্য তিনি আমেরিকা ঘুরেছিলেন। করোনাভাইরাসের কারণে পাকিস্তানের ভঙ্গুর অর্থনীতি আরও ভঙ্গুর হয়ে উঠেছে।

গতবছর মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সফরকালে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান আল-কায়েদার নেতা হত্যার প্রত্যক্ষ দায়িত্ব দাবি করেছিলেন। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে সফরকালে ইমরান দেশটির গণমাধ্যমকে দেওয়া এক সাক্ষাত্কারে বলেছিলেন যে আইএসআই আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রকে লাদেনের অবস্থান সনাক্ত করতে সহায়তা করেছিল। অন্য কথায়, তিনি স্বীকার করেছেন যে ইসলামাবাদ জানত যে লাদেন পাকিস্তানে ছিল। এবার ইমরান খান ঘুরে ফিরে বিন লাদেনকে শহীদ বলে নতুন বিতর্ক শুরু করলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *